Main Menu

বৃহস্পতিবার, অগাস্ট ২০th, ২০২০

 

As Beirut explosion deepens Lebanon’s tragedy, it imperils Bangladeshi migrant workers

Neela Shikder from Gazipur travelled to Lebanon, where her parents reside, in search of a job after a divorce with her husband in 2016. They were spending the days well there. Neela was working as a housemaid and sending money to her parents in Bangladesh when they returned home in 2018. But an economic slowdown coupled with unbridled inflation that began devaluing Lebanese lira in September 2019 put her in a fix.  Joblessness added to her woes when the country imposed a lockdown over the coronavirus pandemic earlier this year.আরও পড়ুন


জোয়ারের পানিতে ভাসছে উপকূল

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট লঘুচাপ ও অমাবস্যার প্রভাবে টানা বৃষ্টি এবং নদনদীতে অতি জোয়ারের পানির চাপে খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা, ভোলা, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, পটুয়াখালী, বরগুনাসহ উপকূলের বিভিন্ন এলাকা বেড়িবাঁধ ভেঙে প্লাবিত হয়েছে। এসব এলাকায় জোয়ারের পানির উচ্চতা স্বাভাবিকের চেয়ে পাঁচ থেকে সাত ফুট বৃদ্ধি পেয়েছে। ফলে উপকূলের বিস্তীর্ণ এলাকায় চলছে জোয়ার-ভাটার খেলা। এতে পানিবন্দি হয়ে পড়েছে লাখো মানুষ। জোয়ারের পানি ঢুকে পড়লে এসব এলাকার মানুষের দুর্ভোগ চরমে ওঠে। ভাটার পানি নামলেও দুর্ভোগ কমছে না। পানিতে ভেসে গেছে হাজারো পুকুর ও মাছের ঘের। নষ্ট হচ্ছে রাস্তাঘাট, কাঁচা ঘরবাড়ি ও ফসলের ক্ষেত।  খুলনা ব্যুরো ওআরও পড়ুন


করোনা থেকে সেরে উঠে ফের হাসপাতালে ভারতের হকি ডিফেন্ডার সুরেন্দর কুমার

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতের জাতীয় হকি দলের ডিফেন্ডার সুরেন্দর কুমারকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ফের বেঙ্গালুরুর এক হাসপাতালে ভরতি করতে হল। সদ্য কোভিড-১৯ থেকে সেরে উঠে হাসপাতাল থেকে ফিরেছেন জাতীয় হকি ডিফেন্ডার সুরেন্দর। এর মধ্য হঠাত্‍‌ই বাঁ-হাত ফুলে ওঠায়, পুনরায় তাঁকে হাসপাতালে ভরতি করতে হল। অগস্টের প্রথম সপ্তাহেই ভারতীয় হকি দলে করোনা হানা দেয়। একের পর এক হকি তারকা করোনায় আক্রান্ত হতে থাকেন। যার শুরুটি হয়েছিল ভারতীয় পুরুষ হকি দলের অধিনায়ক মনপ্রীত সিংকে দিয়ে। একই দিনে হকি অধিনায়ক-সহ মোট পাঁচ খেলোয়াড়ের কোভিড টেস্ট রিপোর্ট পজিটিভ আসে। অধিনায়ক ছাড়া বাকিরা হলেন ডিফেন্ডারআরও পড়ুন


ঘাতকচক্রের লক্ষ্য ছিল স্বৈরশাসন প্রতিষ্ঠা: রাষ্ট্রপতি

বাংলাদেশের ইতিহাসে নৃশংস ওই হত্যাকাণ্ডের ১৬ বছর পূর্ণ হচ্ছে শুক্রবার। দিবসটি উপলক্ষে এক বাণীতে রাষ্ট্রপতি বলেন, “বঙ্গবন্ধু তনয়া বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার উদ্দেশ্যে ২০০৪ সালের ২১ অগাস্ট পরিকল্পিতভাবে বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের জনসভা চলাকালীন ইতিহাসের বর্বরতম গ্রেনেড হামলা চালায়। “আল্লাহর অশেষ রহমতে সেদিন জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রাণে বেঁচে গেলেও প্রাণ হারান দলের ২৪ জন নেতাকর্মী। আহত হন অনেকে। এ হামলায় বেঁচে থাকা অনেকে আজও পঙ্গুত্ববরণ করে দুর্বিষহ জীবনযাপন করছেন। ” “ঘাতকচক্রের লক্ষ্য ছিল বাংলাদেশ আওয়ামী লীগকে নেতৃত্বহীন করে গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়াকে রুখে দেয়া এবং দেশে স্বৈরশাসন ও জঙ্গিবাদআরও পড়ুন


নড়াইলে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা ও দোয়া মাহফিল  

জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে নড়াইলে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২০ আগস্ট) বিকেলে স্বেচ্ছাসেবক লীগের উদ্যোগে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। নড়াইল স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি তারিকুল ইসলাম উজ্জ্বল সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক এসএম পলাশের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন,জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক দেবাশিষ কুন্ডু মিটুল, সাবেক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক হাফিজ খান মিলন, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক গাউসুল আযম মাসুম, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি মিজানুর রহমান, দপ্তর সম্পাদক ফিরোজ শেখ, আ’লীগ নেতা মিসকাতুল ওয়ায়েজীন লিটু, জেলা পরিষদ সদস্য স্বেচ্ছাসেবক লীগআরও পড়ুন