Main Menu

মঙ্গলবার, জুলাই ২৮th, ২০২০

 

বাড়িতে ব্যায়াম করলে কিছু জিনিস মাথায় রাখতে হবে

করোনাভাইরাস মহামারীতে লকডাউন কিংবা সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে অনেকেই বাইরে তেমন একটা বের হচ্ছেন না। কিন্তু শরীর তো ফিট রাখতে হবে। কেননা এই সময় স্বাস্থ্য নিয়ে অন্য সময়ের চেয়ে আরও বেশি সতর্ক থাকতে হচ্ছে। তাই অনেকেই বাড়িতে ব্যায়াম করছেন। কিন্তু বাড়িতে ব্যায়ামের সময় কিছু ভুল হতে পারে, যা ব্যায়ামের কার্যকারিতায় প্রভাব ফেলতে পারে। বাড়িতে ওয়ার্কআউট করলে কিছু জিনিস মাথায় রাখতে হবে। বিশেষজ্ঞদের মতে, অ্যারোবিক্সের মতো হালকা ব্যায়াম সকলেই করতে পারেন। যদি পিঠে ব্যথা বা অন্য কোনও সমস্যা থেকে থাকে তাহলে সতর্ক থাকা উচিত। ভালোভাবে ওয়ার্ক আপ করা সকলের জন্য দরকার।আরও পড়ুন


দুই হাজার নতুন চিকিৎসক নিয়োগ হচ্ছে না

ঢাকা, ২৯ জুলাই- করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিতে জরুরি ভিত্তিতে দুই হাজার সহকারী সার্জন পদ সৃষ্টি করা হলেও আপাতত চিকিৎসক নিয়োগের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর। মঙ্গলবার (২৮ জুলাই) স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক (প্রশাসন) ডা. মো. বেলাল হোসেন স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এ বিষয়টি জানানো হয়। জানা গেছে, করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিত করতে ১৫৮টি ৫০ শয্যাবিশিষ্ট উপজেলা হাসপাতালে, ২৬৬টি ৩১ শয্যাবিশিষ্ট উপজেলা হাসপাতালে, ২৮টি ২০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালে এবং ১৮টি ১০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালে সহকারী সার্জন (ইমার্জেন্সি মেডিকেল অফিসার, ইন্ডোর মেডিকেল অফিসার, রেডিওলজিস্ট ও অ্যানেস্থিসিয়া) পদে চিকিৎসক নিয়োগের জন্য অর্থ মন্ত্রণালয়ের অনুমতিসহআরও পড়ুন


ছাত্রলীগ নেতার বাড়িতে ৫ দিন ধরে অনশনে তরুণী

পাবনা, ২৯ জুলাই- বিয়ের দাবিতে ছাত্রলীগ নেতার বাড়িতে ৫ দিন ধরে অনশন করছেন এক তরুণী (১৭)। এর আগে প্রেমিক ও ছাত্রলীগ নেতা আলী রেজা গত শুক্রবার (২৪ জুলাই) ওই তরুণীকে বিয়ের কথা বলে তাদের বাড়িতে ডেকে আনেন। ঘটনাটি পাবনার সুজানগর উপজেলার চরভবানীপুর গ্রামের কিন্তু বাড়ির লোকজনের চাপে রেজা আত্মগোপন করেছে বলে তরুণীর পরিবারের অভিযোগ। বিয়ের আগে রেজার পরিবার ওই তরুণীকে ঘরে ঠাঁই দিতেও রাজি নয়। এতে উভয় সংকটে পড়ে ওই তরুণী বিয়ের দাবিতে অনঢ় থেকে শুক্রবার থেকে প্রেমিকের বাড়িতে অবস্থান করছেন। প্রেমিক আলী রেজা সুজানগর উপজেলার চরভবানীপুর গ্রামের আনছের আলীআরও পড়ুন


ধামরাইয়ে গ্রেপ্তার ৫ ‘জঙ্গি’ রিমান্ডে

ধামরাই থানায় দায়ের করা সন্ত্রাসবিরোধী আইনের মামলায় মঙ্গলবার পাঁচজনকে ঢাকার আদালতে নিয়ে প্রত্যেককে সাত দিনের জন্য হেফাজতে চেয়ে আবেদন করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা। শুনানি শেষে ঢাকার বিচারিক হাকিম আশরাফুজ্জামান তিন দিন রিমান্ডের আদেশ দেন। আসামিদের পক্ষ নিয়ে কোনো আইনজীবী আদালতে দাঁড়াননি বলে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, এ আদালতের অন্যতম বেঞ্চ সহকারী আবদুল্লাহ আল মামুন। আসামিরা হলেন- মিজানুর রহমান পলাশ (৩৫), দুরুল হুদা (৪৪), আব্দুর রশিদ (২১), মো. রাসেল (৩৭) এবং আব্দুল হাই (৪০)। তাদের সবার বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জে। র‌্যাব-৪ এর একটি দল রোববার রাতে অভিযান চালিয়ে ধামরাইর ঢুলিভিটা বাসস্ট্যান্ড এলাকা থেকেআরও পড়ুন


প্রতারণার মামলায় এইচডিএফ অ্যাপারেলসের সাবেক সিইও রিমান্ডে

মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর হাকিম মোর্শেদ আল মামুন ভূঁইয়া শুনানি শেষ তার রিমান্ড মঞ্জুর করেন। মঙ্গলবার জহিরুল ইসলামকে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে গোয়েন্দা পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের পরিদশর্ক আবু সাইদ। উত্তরা পূর্ব থানায় দায়ের করা প্রতারণার মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য তাকে সাত দিনের রিমান্ডে নিতে আবেদন করেন এই পুলিশ কর্মকর্তা। অপরদিকে তার আইনজীবী কাজী নজিবুল্যাহ হিরু রিমান্ড বালিত চেয়ে জামিনের আবেদন করেন। বাদীর ব্যক্তিগত আইনজীবী ঢাকা বারের কার্যকরী পরিষদের বতর্মান সাধারণ সম্পাদক হোসেন আলী খান হাসান রিামান্ডের পক্ষে শুনানি করেন। উভয়পক্ষের শুনানি শেষে বিচারক জামিনআরও পড়ুন