Main Menu

বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ২৫th, ২০১৯

 

শমী কায়সারের ফোন চুরি, ‘চোর’ বলা হলো সাংবাদিকদের

স্টাফ রিপোর্টারঃ  ‘বিন্দু ৩৬৫’ নামের একটি ট্যুরিজম কোম্পানির যাত্রা শুরুর অনুষ্ঠান চলছিল। তখনো প্রধান অতিথি তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ উপস্থিত হননি। বিশেষ অতিথি র‌্যাব মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ মাত্রই বক্তব্য শেষ করে বেরিয়ে গেছেন। অভিনেত্রী জয়া আহসান, সাংবাদিক মাসুদা ভাট্টি, অভিনেত্রী ও ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ই-ক্যাব) সভাপতি শমী কায়সারের উপস্থিতিতে চলছিল কেক কাটার আয়োজন। এরমধ্যেই শমী কায়সার চিৎকার করে উঠেন, জানান তার দুইটি স্মার্ট ফোনই হারিয়ে গেছে। ভরা মজলিস থেকে ফোন চুরি যাওয়ার ঘটনায় হতবাক শমী কায়সার। ঘটনা এখানেই শেষ হতে পারতো। কিন্তু না। অভিনেত্রী শমী তার নিরাপত্তা কর্মীদের বললেনআরও পড়ুন


অভিনেতা সালেহ আহমেদ আর নেই

স্টাফ রিপোর্টারঃ নন্দিত অভিনেতা সালেহ আহমেদ মারা গেছেন। আজ বুধবার বেলা আড়াইটায় রাজধানীর অ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করে অভিনেতা আহসানুল হক মিনু বলেন, ‘বুধবার দুপুর ১২টায় আমি হাসপাতালে এসেছি। তখন বিছানায় শুয়ে ছিলেন। তার শারীরিক অবস্থা খুব খারাপ ছিল। অবশেষে বেলা ২টা ৩৩ মিনিটে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।’ মিনু আরও জানান, আজ বুধবার বাদ মাগরিব উত্তরখান জামে মসজিদে সালেহ আহমেদের জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। জানাজা শেষে সেখানকার সরকারি কবরস্থানে দাফন করা হবে এই গুণী অভিনেতাকে। প্রসঙ্গত, বগুড়ারআরও পড়ুন


চিরনিদ্রায় জায়ান

স্টাফ রিপোর্টারঃ মাত্র আট বছরের যে শিশুটি নানা-নানি, দাদা-দাদি, মা-বাবাসহ পরিবারের সবাইকে মাতিয়ে রাখত। যার চঞ্চলতায় মেতে থাকত পরিবারের সদস্যরা। মেতে থাকত বাসার সামনের রাস্তা ও পাশের মাঠটা। সেসব কিছু থেকে চিরতরে বিদায় নিয়ে বুধবার সেই মাঠে জানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে চিরনিদ্রায় শায়িত জায়ান চৌধুরী। বুধবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে তার দাফন সম্পন্ন হয়। এর আগে গত রোববার শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোতে সিরিজ বোমা হামলায় নিহত হয় আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সংসদ সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিমের নাতি জায়ান চৌধুরী। আজ বেলা পৌনে ১টায় তার মরদেহ শ্রীলঙ্কা এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে ঢাকারআরও পড়ুন


সারাদেশে নৈরাজ্যের প্রতিবাদে শাহবাগে ঐক্যফ্রন্টের গণজমায়েত ৩০ এপ্রিল

স্টাফ রিপোর্টারঃ ফেনীর নুসরাত হত্যাকাণ্ড, দেশব্যাপী নারী-শিশু ধর্ষণ ও খুন বৃদ্ধিসহ নানা ইস্যুতে রাজধানীর শাহবাগে প্রতিবাদী গণজমায়েত কর্মসূচি পালন করবে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। আগামী ৩০ এপ্রিল এ গণজমায়েতের দিন নির্ধারণ করা হয়েছে। বুধবার বিকেলে ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ড. কামাল হোসেনের মতিঝিল চেম্বারে স্টিয়ারিং কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ড. কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে বিকেল ৪টার দিকে শুরু হওয়া এ বৈঠক চলে প্রায় ৬টা পর্যন্ত। বৈঠক শেষে আ স ম আবদুর রব সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন। তিনি বলেন, আজ কয়েকটি সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। সিদ্ধান্তগুলো হলো ৩০ এপ্রিল শাহবাগে গণজমায়েত, নোয়াখালীআরও পড়ুন


দেশের বিভিন্নস্থানে সামাজিক অবক্ষয়ের চিত্র দেখা যাচ্ছে

স্টাফ রিপোর্টারঃ ফেনীতে মাদরাসাছাত্রী নুসরাত হত্যাকাণ্ড, শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ বোমা হামলাসহ দেশে ধর্ষণ ও বিভিন্ন সামাজিক অবক্ষয় নিয়ে সংসদে একটি সাধারণ আলোচনার দাবি জানিয়েছেন সরকার ও বিরোধী দলের জ্যেষ্ঠ নেতারা। তারা বলেন, সম্প্রতি ধর্মের নামে প্রতিহিংসার আগুনে সারা দুনিয়া জ্বলছে। মাদরাসাছাত্রী নুসরাতকে বর্বরোচিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। জঙ্গি-সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে থাকলেও বাংলাদেশ এখনও নিরাপরাধ নয়। দেশের বিভিন্নস্থানে কিছু সামাজিক অবক্ষয়ের চিত্রও দেখা যাচ্ছে। এসব নিয়ে সংসদে সাধারণ আলোচনা হওয়া উচিত। বুধবার রাতে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদ অধিবেশনে অনির্ধারিত আলোচনায় অংশ নিয়ে তারা এ দাবি জানান। পয়েন্ট অব অর্ডারে ফ্লোর নিয়েআরও পড়ুন