Main Menu

সোমবার, ফেব্রুয়ারী ১১th, ২০১৯

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের আবেগঘন স্ট্যাটাস নিয়ে সর্বত্র চলছে তোলপাড়

স্টাফ রিপোর্টারঃ হোসনে আরা বীণা। সদ্য ওএসডি (বিশেষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) করা হয়েছে তাকে। ৬ দিন আগেও তিনি ছিলেন নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা। এরও আগে তিনি নারায়ণগঞ্জের বন্দর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ছিলেন। পরপর নারায়ণগঞ্জের দুটি উপজেলায় দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে তিনি অনেকটা পরিচিত মুখ হয়ে উঠেন নারায়ণগঞ্জের উপজেলা প্রশাসনে। তবে ৯ বছরের দাম্পত্য জীবনে বহু   চেষ্টা-চিকিৎসার পরও কোনো সন্তান লাভ করতে পারেননি। কিন্তু ৫ মাস আগে সন্তানসম্ভাবনার সংবাদে আনন্দের বন্যা বইছিল দুই পরিবারে। অসুস্থ শরীর নিয়েই একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সহকারী রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেছেন হোসনে আরা বীণা। কোনোআরও পড়ুন


অ্যাব’র আহ্বায়ক কমিটি গঠন

স্টাফ রিপোর্টারঃ বিএনপিপন্থী কৃষিবিদদের সংগঠনের পুরনো কমিটি বাতিল করে নতুন আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়েছে। বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানান। এতে বলা হয়, এগ্রিকালচারিস্ট অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (এএবি-অ্যাব) বর্তমান কমিটি বিলুপ্ত করা হয়েছে। রাশিদুল হাসান হারুন আহ্বায়ক করে নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটির অন্যরা হলেন গোলাম হাফিজ কেনেডি (১ নম্বর যুগ্ম আহ্বায়ক) এবং জি কে মোস্তাফিজুর রহমান (সদস্য সচিব)।


বিএনপি আন্দোলন করে তাদের নেত্রীকে মুক্ত করতে পারবে না

স্টাফ রিপোর্টারঃ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোহাম্মদ নাসিম বিএনপি ও ঐক্যফ্রন্ট থেকে নির্বাচিত এমপিদের সংসদে আসার আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, সংসদই গণতান্ত্রিক রাজনীতির পাদপীঠ। যে কোনো সমস্যা সমাধানের স্থান। সংসদে এসে কথা বলুন, সমালোচনা করুন। জনগণ এ জন্যই আপনাদেরকে ভোট দিয়েছে। রোববার বিকালে কাজিপুর উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। খালেদা জিয়ার মুক্তির প্রসঙ্গ টেনে মোহাম্মদ নাসিম বলেন, এক বছরে যে দল তাদের নেত্রীকে মুক্ত করতে পারেনি, জনগণকে সংগঠিত করতে ব্যর্থ হয়েছে, তারা আর যাইহোক আন্দোলন করে নেত্রীকে মুক্ত করতে পারবে না। আইনের মাধ্যমেআরও পড়ুন


তাবলীগের উভয় গ্রুপের মনে জ্বলছে তুষের আগুন

উবায়দুর রহমান খান নদভী: যুগে যুগে ইসলামের প্রচারে নতুন ও যুগোপযোগী কৌশল দেখা গেছে। প্রায় এক শতাব্দী আগে উপমহাদেশে জনগণের কাছে তাদের দীন ঈমানকে নিয়ে যাওয়ার জন্য দিল্লী থেকে একটি নতুন ধারার কাজ শুরু হয়। প্রথমে কান্ধালা, পরে দিল্লীর অধিবাসী মাওলানা ইসমাঈল রহ.-এর পুত্র মাওলানা ইলিয়াস রহ. এ ধারার কাজ শুরু করেন। যদিও এর আগে মাওলানা আশরাফ আলী থানভী রহ. একই ধারার গণমুখী এই কাজ দিল্লীর একই এলাকায় শুরু করিয়েছিলেন। কিন্তু বহুমুখী কাজের চাপে তাবলীগের এ কাজ তিনি ব্যাপক করতে পারেননি। তার প্রিয় পাত্র মাওলানা ইলিয়াস রহ.-কে তাবলীগের কাজ অতুলনীয়আরও পড়ুন