Main Menu

সোমবার, নভেম্বর ২৬th, ২০১৮

 

হাতের লেখাই বলে দেবে কে কেমন মানুষ!

জীবনধারা ডেস্কঃ কারো হাতের লেখায় আমরা মুগ্ধ হই, আবার কারো হাতের লেখার পাঠোদ্ধারই দুঃসাধ্য হয়ে পড়ে! বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বিশ্বের প্রতিটি মানুষের হাতের লেখা আলাদা। আর গ্রাফোলজিস্টদের মতে, এর সূত্র ধরেই বুঝে ফেলা সম্ভব, কে কেমন ধরনের মানুষ! গ্রাফোলজি বিজ্ঞানের উপর ভিত্তি করে মানবচরিত্র নির্ণয়ের এই পদ্ধতিতে চাইলে জানতে পারেন নিজের সম্পর্কেও। জেনে নিন আপনার সই করার পদ্ধতি ও হাতের লেখা কী ইঙ্গিত করছে আপনার সম্পর্কে- সই করার সময় কি কেবল নিজের নামের আদ্যক্ষর দিয়ে তারপর পদবী লেখেন? বিশেষজ্ঞ অ্যানেট পয়েনজারের মতে, এমনটা যারা করেন, তারা আসলে জীবনে গোপনীয়তাকে গুরুত্ব দেন।আরও পড়ুন


সরকারি হাইস্কুলে ভর্তি পরীক্ষা শুরু ১৭ ডিসেম্বর, শেষ ২০ ডিসেম্বর

শিক্ষা ও সংস্কৃতি ডেস্কঃ সারাদেশের একযোগে সরকারি হাইস্কুলে ভর্তি পরীক্ষা শুরু হবে আগামী ১৭ ডিসেম্বর। শেষ হবে ২০ ডিসেম্বর। এর আগে ১ ডিসেম্বর থেকে ১৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত অনলাইনে আবেদন করা যাবে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অনুরোধের পরিপ্রেক্ষিতে ইসি এ সময়সূচির ব্যাপারে সম্মতি দিয়েছে বলে জানা গেছে। এ পরীক্ষা সামনে রেখে রোববার ভর্তি নীতিমালা প্রকাশ করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। ইসি সূত্র জানিয়েছে, ভোটের আগের দিন বিকেল থেকে ভোট কেন্দ্রে অবস্থান করবেন ভোটগ্রহণ কর্মকর্তারা। এ ছাড়া ৭ থেকে ১৫ ডিসেম্বর এবং ১৮ থেকে ২৩ ডিসেম্বর ভোটগ্রহণ কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ নেয়া হবে। প্রশিক্ষণের জন্যও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ব্যবহার করা হবে।আরও পড়ুন


লাঙল ঠেকাতে হাতে বৈঠা ও মাথায় কাফনের কাপড়

ময়মনসিংহ প্রতিনিধিঃ হাতে কাঠের তৈরি বৈঠা ও মাথায় কাফনের কাপড়, মুখে একটি স্লোগান ‘লাঙল ঠেকাও’ -এ চিত্র ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জের সদরের চৌরাস্তা মোড়ের। গতকাল রোববার দুপুর ১২টায় ‘নৌকা সমর্থক গোষ্ঠী’র ব্যানারে ‘লাঙল ঠেকাও’ স্লোগানে বিক্ষোভ করে আওয়ামী লীগ ও তার অঙ্গ সংগঠনগুলো। অবরোধ করা হয় ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ সড়ক। রাস্তা বন্ধ থাকায় দুর্ভোগে পড়েন কিশোরগঞ্জ ও ময়মনসিংহগামী যাত্রীরা। যান জটে আটকে থাকা অনেক যাত্রীই ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, নির্বাচনের আগমুহূর্তে এ কেমন তামাশা। যেখানে নির্বাচন উপলক্ষে ভোটারদের দ্বারপ্রান্তে ছুটবে প্রার্থীগণ, সেখানে রাস্তা বন্ধ করে ভোগান্তীতে ফেলছে সাধারণ যাত্রীদের। এটিই কি হওয়া উচিত নির্বাচনীআরও পড়ুন


সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে এক জেলার কর্মকর্তাদের অন্য জেলায় বদলি করা জরুরি

স্টাফ রিপোর্টারঃ পক্ষপাতিদুষ্ট জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও পুলিশ সুপারদের বদলির দাবি জানিয়েছেন ২০ দলীয় জোট। একই সঙ্গে মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রীদের সহকারি রিটার্নিং কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ না দেয়ার দাবি জানিয়েছেন তারা। নির্বাচালীন সময় মন্ত্রী ও সিনিয়র নেতারা ব্যক্তিগত নিরাপত্তার জন্য স্পেশাল ব্রাঞ্চের নিরাপত্তা রক্ষী পেয়ে থাকেন। একইভাবে বিএনপি স্থায়ী কমিটির সকল সদস্যসহ নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নিরাপত্তা বাহিনী দেয়ার দাবি করা হয়েছে। গতকাল রোববার বিকালে নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে ২০ দলীয় জোটের একটি প্রতিনিধি দল বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় বিএনপি স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান, বাংলাদেশ কল্যাণআরও পড়ুন


আবারও সিইসির পরিবর্তন চাইলেন ড. কামাল

স্টাফ রিপোর্টারঃ প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদার বিরুদ্ধে পক্ষপাতমুলক আচরণের অভিযোগ তুলে ওই পদে পরিবর্তনের দাবি জানিয়েছেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন। গতকাল রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে গণফোরামের কনফারেন্স রুমে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এই দাবি জানান। ড.কামাল হোসেন বলেন, সিইসির ওপর প্রথম থেকেই আমরা সন্তুষ্ট ছিলাম না। এখনো সন্তুষ্ট নই। তার আচরণে আমরা মনে করি তার পক্ষে নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্ভব নয়। তার পরিবর্তে একজন বিশ্বাসযোগ্য লোককে আনতে হবে। আমি ওনাকে আবারও বলছি, এখনো সময় আছে, এতদিন যা করেছেন করেছেন, এখন থেকে পরিবর্তন হন। তাআরও পড়ুন