Main Menu

শনিবার, এপ্রিল ৭th, ২০১৮

 

এমপি-মন্ত্রীদের চুরির খবর ঢাকতেই ৩২ ধারা- আ স ম আবদুর রব

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ শুক্রবার দুপুরে লক্ষ্মীপুর প্রেসক্লাবে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময়কালে এ কথা বলেন তিনি। যা ৫৭ তাই ৩২ উল্লেখ করে আ স ম রব বলেন, সমৃদ্ধশীল একটি জাতি বা দেশ উন্নত জাতি হিসেবে টিকে থাকার জন্য স্থিতিশীলতা, গণতন্ত্র, মৌলিক অধিকার, সাংবাদিক ও সংবাদপত্রের স্বাধীনতা দরকার। দেশে আইনের শাসন, ন্যায়বিচার ও সংবাদপত্রের স্বাধীনতা না থাকায় সব ম্লান হয়ে যাচ্ছে। সাবেক এই মন্ত্রী আরো বলেন, জনগণের সবচাইতে বড় শক্তি হচ্ছে আইনের শাসন ও কোট-কাচারী, কিন্তু আজ আইনের শাসন নেই, ভোটাধিকার নেই। মাত্র দুই কোটি টাকার জন্য সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে জেলে পাঠানো হয়েছে। অথচ লক্ষ কোটিআরও পড়ুন


জামিন পাননি বলিউড সুপারস্টার সালমান খান

বিনোদন ডেস্কঃ কৃষ্ণসার হরিণ হত্য মামলায় জামিন পাননি বলিউড সুপারস্টার সালমান খান। শুক্রবার রাজস্থানের যোধপুরের একটি আদালতে জামিন আবেদনের ওপর শুনানি হয়। কিন্তু বিচারক আবেদন মঞ্জুর না করে এ বিষয়ে সিদ্ধান্তের জন্য শনিবার দিন ধার্য করেন। বর্তমানে যোধপুর কেন্দ্রীয় সংশোধনাগারের ‘কয়েদি নম্বার ১০৬’তে আছেন সালমান খান। জানা গেছে, সালমান খানকে জেলের খাবারই খেতে হচ্ছে। শুক্রবার সকালে তিনি ছোলা, গুড় ও এক কাপ চা পান করে আদালতে হাজির হন। এদিকে সালমানকে দেখতে শুক্রবার যোধপুর জেলে গেছেন নায়িকা প্রীতি জিন্তা। বলিউড ভাইজানের সঙ্গে তার বন্ধুত্ব দীর্ঘদিনের। উপযুক্ত প্রমাণ হাজির করতে না পারায় হরিণ হত্যাআরও পড়ুন


গণতান্ত্রিক আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশ খালেদা জিয়ার

স্টাফ রিপোর্টারঃ কারাগারে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের অবস্থা খুব ভাল নেই বলে জানিয়েছেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, ম্যাডাম খুব একটা ভালো নেই। ম্যাডামের স্বাস্থ্য খুব একটা ভালো নয়। তবে উনার মনোবল অনেক দৃঢ়। উনি আমাদের চেয়েও দৃঢ় মনের মানুষ। উনি বার বার এ কথা বলেছেন যে, আমার জন্য আপনারা ভাববেন না। আমি ভালো আছি, আমি শক্ত আছি এবং এসব ছোটো-খাটো বিষয় আমার কোনো সমস্যা করবে না। গতকাল (শুক্রবার) বিকেলে নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে খালেদা জিয়ার সাথে দেখা করে এসে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুলআরও পড়ুন


রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারের অনীহা

স্টাফ রিপোর্টারঃ বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের নিজ দেশ মিয়ানমারে ফেরত পাঠানোর প্রক্রিয়া এখনও চিঠি চালাচালিতে সীমাবদ্ধ। রোহিঙ্গাদের প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া খুবই মন্থর হয়ে পড়েছে। রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারের অনীহা, রাখাইন রাজ্যে তাদের নিজ বাড়িতে নিরাপদ আশ্রয়ের ব্যবস্থা না করা এবং আন্তর্জাতিক চাপ কমে যাওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। এ বিষয়ে মিয়ানমারের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয়ভাবে এবং জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক পর্যায়ে যোগাযোগ অব্যাহত রেখেছে বাংলাদেশ। এর অংশ হিসেবে চলতি মাসেই মিয়ানমারের এক মন্ত্রী বাংলাদেশ সফরে আসছেন। জাতিসংঘ শরণার্থী সংস্থা ইউএনএইচসিআরের সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) সই করতে যাচ্ছে বাংলাদেশ। এ ছাড়াও বর্ষা মৌসুম শুরুর ফলে পাহাড়আরও পড়ুন