Main Menu

বৃহস্পতিবার, জুন ১৫th, ২০১৭

 

পশ্চিম লন্ডনে বহুতল ভবনে আগুন ।। মুসলিমদের সেহরি বাঁচাল বহু প্রাণ

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ পশ্চিম লন্ডনে একটি বহুতল ভবনে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় অনেকের জীবন বাঁচাতে সাহায্য করেছে মুসলিমরা। রোজা রাখতে শেষ রাতে জেগে উঠে তারাই প্রথমে খেয়াল করে গ্রেনফেল টাওয়ারের ভয়াবহ অগ্নিশিখা। ভবনের অভিবাসীরা জানিয়েছে, ২৭ তলা ভবনটিতে আগুন ছড়িয়ে পড়লেও তারা কোনো সংকেত শুনতে পাননি। তবে আশপাশের প্রতিবেশীরাই প্রথমে আগুন লাগার ঘটনাটা টের পান। আর তাদের বেশিরভাগই মুসলিম। শেষ রাতে রোজা রাখার জন্যই তারা সেহরি খেতে জেগে উঠেছিলেন এবং তখনই তাদের কেউ কেউ ওই ভবনটিতে আগুন জ্বলতে দেখতে পান। ইন্ডিপেনডেন্ট জানায়, মধ্যরাতের দিকে ভবনটিতে আগুন লাগে। আর এ সময়টাতেই টাওয়ারে বসবাসকারীআরও পড়ুন


ইংলিশদের উড়িয়ে নতুন ইতিহাস গড়ল পাকিস্তান

খেলাধুলা ডেস্কঃ ইংল্যান্ডকে উড়িয়ে দিয়ে প্রথমবারের মতো আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে উঠেছে পাকিস্তান। বুধবার কার্ডিফে অনুষ্ঠিত প্রথম সেমিফাইনালে ইংল্যান্ডের দেয়া ২১২ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৩৭.১ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় সরফরাজের দল। এর আগে ১৯৯৬ সালে বিশ্বকাপের পর আইসিসির কোনো টুর্নামেন্টে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে জিততে পারেনি পাকিস্তান। আজ সে রেকর্ড ভেঙে নতুন ইতিহাস গড়ল ইমরান খানের উত্তরসূরীরা। আজকের ম্যাচে পাকিস্তানের পক্ষে আজহার আলী ৭৬ ও ফখরে জামান ৫৭ রান করেন। এছাড়া বাবর আজম ৩৮ ও মোহাম্মদ হাফিজ ৩১ রানে অপরাজিত ছিলেন। ইংল্যান্ডের পক্ষে আদিল রশিদআরও পড়ুন


সামনে আসছে শুভ দিন ধানের শীষে ভোট দিন- খালেদা জিয়া

স্টাফ রিপোর্টার : দশম সংসদ নির্বাচনে বিএনপি-জামায়াত জোটের বর্জনের মুখে আওয়ামী লীগ একতরফা নির্বাচনে পাস করে আসলেও আগামী নির্বাচনে আর এমনটি হবে না বলে দাবি করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। তিনি বলেন, একতরফা নির্বাচন করে আওয়ামী লীগকে আর ক্ষমতায় যেতে দেয়া হবে না। আওয়ামী লীগ মনে করছিলো অতীতের মত একতরফা নির্বাচন করে আবার ক্ষমাতায় যাবে। না, তাদেরকে আর সে সুযোগ দেয়া হবে না। অনেক সুযোগ পেয়েছে, দেশটাকে উন্নয়নের নামে লুটেপুটে খাচ্ছে তারা। ধানের শীষে ভোট চেয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, সামনে আসছে শুভ দিন ধানের শীষে ভোট দিন। গতকাল বুধবারআরও পড়ুন


পাহাড়ধসে নিহত সেনা কর্মকর্তার মৃত্যু ।। বাউফলে তানভিরের পরিবারে চলছে শোকের মাতম

বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধিঃ রাঙ্গামাটি সদরের মানিক ছড়িতে প্রবল বর্ষণে ধসে পরা পাহাড়ের নিচে চাপা পরে নিহত ছয় সেনা সদস্যদের মধ্যে ক্যাপ্টেন তানভিরের বাড়ি বাউফল উপজেলার কালিশুরী ইউনিয়নের সিংহেরাকাঠী গ্রামে। তার বাবার নাম মোঃ ছালাম মোল্লা এবং মা বাবলী বেগম। আকস্মিক ওই মৃত্যুর ঘটনায় তানভিরের পরিবারের চলছে এখন শোকের মাতম। সোমবার মৃত্যুর ঘটনা শুনেই বাবা ও মা ঢাকার উদ্দেশ্যে চলে যান। ক্যাপ্টেন তানভিরের এক ভাই ও এক বোন। ৫ মাস আগে তানভির জয়পুরহাটে বিয়ে করেন।স্বজনরা জানান, তানভিরের বাবা ছালাম মোল্লার চাকরির সুবাধে পরিবারের অন্যন্য সদস্যদের সাথে তানভিরও দীর্ঘদিন ধরে ঢাকার টঙ্গীআরও পড়ুন


পাহাড়ধসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৬৪

স্টাফ রিপোর্টারঃ  অবিরাম বর্ষণ থেকে সৃষ্ট পাহাড়ীধসে চট্রগ্রাম, রাঙামাটি, ও কক্সবাজার, বান্দরবন জেলায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাড়িয়েছে কমপক্ষে ১৬৪। জেলা শহরগুলোর সাথে কোথাও কোথাও উপজেলা বা বিভাগীয় শহরগুলোর যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন। কোথাও কোথাও বিদ্যুৎ সরবরাহও বন্ধ রয়েছে। সরকারের পক্ষ থেকে দূর্গত জেলা-উপজেলায় আর্থিক সাহায্য ও ত্রাণ বিতরণ করা হচ্ছে। দূর্গত এলাকার যানচলাচলে নেয়া হচ্ছে বিভিন্ন প্রদক্ষেপ।পাহাড় ধস ও পাহাড়ি ঢলে চট্টগ্রামে আরও ৭ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৭-এ। জেলা প্রশাসনের নিয়ন্ত্রণকক্ষ থেকে ৩৪ জন নিহত এবং আরও ২ জন নিখোঁজ থাকার বিষয়টি জানানো হয়েছে।আরও পড়ুন