Main Menu

জানুয়ারী, ২০১৭

 

সরকার সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা বিধানে ব্যর্থ- এরশাদ

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ সরকার সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা বিধানে ব্যর্থ হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ। তিনি বলেন, দেশের মানুষ জীবনের নিরাপত্তা চায়। শান্তিতে ঘুমাতে চায়। কিন্তু এখন কে কখন খুন হবে, এ আতংকে দিন কাটছে মানুষের। কারো কোনো নিরাপত্তা নেই। সুন্দরগঞ্জের সংসদ সদস্য লিটন হত্যাকাণ্ড তার বড় উদাহরণ। আমরা বিষয়টি নিয়ে ব্যথিত। ওই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা প্রমাণ করে এদেশে একজন সংসদ সদস্যের জীবনেরও নিরাপত্তা নেই। যেখানে সংসদ সদস্যের নিরাপত্তা নেই, সেখানে সরকার সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা দেবে কোথা থেকে? সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা বিধানেও সরকার ব্যর্থ। সোমবারআরও পড়ুন


মায়ের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ,ভালোবাসার ভিন্নধর্মী কর্মসূচি

নীলফামারী প্রতিনিধি  : সে এক অন্য রকম কর্মসূচি, অসাধারণ দৃশ্য। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মাঠে সারিবদ্ধ চেয়ারে বসে আছেন মমতাময়ী মায়েরা। আর তাদের সন্তান মহাবিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের সামনে দাঁড়িয়ে প্রস্তুত। মাইকে ঘোষণা দেয়ার সাথে সাথে ছাত্রছাত্রীরা নিজ নিজ মায়ের দুই পা পানি দিয়ে পরিষ্কার করে ধুয়ে-মুছে দিতে ব্যস্ত হয়ে পড়ল। গতকাল (সোমবার) এ রকম দৃশ্য দেখা যায় নীলফামারীর সৈয়দপুর সরকারি কারিগরি মহাবিদ্যালয়ে।  শিক্ষার্থীদের মায়ের প্রতি শ্রদ্ধাবোধ, ভালোবাসা দেখানো ও যত্মশীল করার লক্ষ্যে এ ধরনের ভিন্নধর্মী কর্মসূচির আয়োজন করা হয় মহাবিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। এ কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে মহাবিদ্যালয়ের আড়াইশ’ শিক্ষার্থীরা নিজ নিজ মায়ের দুইআরও পড়ুন


সৎ,যোগ্য,নিরপেক্ষ ও নির্দলীয় নির্বাচন কমিশন চান বিশিষ্টজনরা

নিজস্ব প্রতিনিধি  : সৎ, যোগ্য, নিরপেক্ষ ও নির্দলীয় ব্যক্তিদের নিয়ে নির্বাচন কমিশন গঠন করতে সার্চ কমিটিকে দেশের বিশিষ্ট নাগরিকরা পরামর্শ দিয়েছেন। স্থায়ী ভিত্তির ওপর কমিশনকে দাঁড় করাতে আইন প্রণয়নের কথাও বলেছেন তারা। বিষয়টি নিয়ে গণশুনানির আয়োজন করা যেতে পারে বলে মনে করেন তারা। বাস্তবতার আলোকে প্রয়োজনে দুই মাস সময় নিয়ে হলেও ৪৫ বছরের কাক্সিক্ষত কমিশন গঠনের পরামর্শ এসেছে বিশিষ্টজনদের কাছ থেকে। গতকাল সোমবার সুপ্রিম কোর্টের জাজেস লাউঞ্জে সার্চ কমিটির সঙ্গে বিশিষ্ট নাগরিকদের মতবিনিময় সভায় এসব পরামর্শ দেন  দেশের ১২ জন বিশিষ্ট নাগরিক। একই বিষয়ে মতামত নিতে আগামী ১ ফেব্রুয়ারি আরোআরও পড়ুন


‘জাতীয় হজ ও ওমরাহ নীতি-২০১৭’ অনুমোদন ।। বাড়ল হজের খরচ

নিজস্ব প্রতিনিধি  : সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যাওয়ার খরচ গতবারের তুলনায় ১৪ থেকে ২১ হাজার টাকা বাড়ছে এবার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে গতকাল সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘জাতীয় হজ ও ওমরাহ নীতি-২০১৭’ এবং ‘হজ প্যাকেজ-২০১৭’ এর খসড়ায় অনুমোদন দেয়া হয়। চলতি বছর ১,২৭,১৯৮ জন বাংলাদেশী হজ পালন করবেন। এর মধ্যে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় মোট ১,১৭,১৯৮ জন এবং সরকারি ব্যবস্থাপনায় ১০ হাজার বাংলাদেশী পবিত্র হজ পালন করবেন। গত বছর সরকারিভাবে ১০ হাজার এবং বেসরকারিভাবে ৯১ হাজার ৭৫৮ জন হজে গিয়েছিলেন। বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম সাংবাদিকদের সামনে এবারের হজ প্যাকেজের তথ্যআরও পড়ুন


মুসলিমবান্ধব সেরা ১৫টি দেশ

নিজস্ব প্রতিনিধি : ‘গ্লোবাল ইসলামিক ইকোনমি রিপোর্ট ২০১৬-১৭’র প্রতিবেদনে সবচেয়ে বেশি মুসলিমবান্ধব দেশগুলোর নাম উল্লেখ করা হয়েছে৷ সেখানে বাংলাদেশও আছে, তবে তা সবার শেষে৷ সবার সেরা মালয়েশিয়া! হ্যাঁ, তালিকায় সবার ওপরে আছে মালয়েশিয়া৷ তাদের মোট পয়েন্ট ১২১! দ্বিতীয় স্থানে সংযুক্ত আরব আমিরাত মোট ৮৬ পয়েন্ট পেয়ে দ্বিতীয় সেরা মুসলিমবান্ধব দেশ হয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাত৷ তৃতীয় স্থানে বাহরাইন সৌদি আরবের চেয়ে তিন পয়েন্ট বেশি (৬৬) নিয়ে বাহরাইন আছে তৃতীয় স্থানে৷ চতুর্থ স্থানে সৌদি আরব সৌদি আরবের মোট পয়েন্ট ৬৩৷ তারা আছে চতুর্থ স্থানে৷ ওমান পঞ্চম ৪৮ পয়েন্ট নিয় পঞ্চম স্থানে রয়েছেআরও পড়ুন